শাহবাগের বিক্ষোভ থেকে আটক ১৫ শিক্ষার্থী

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা স্থগিত করার প্রতিবাদে বিক্ষোভের চেষ্টাকালে শাহবাগে থেকে ১৫ জনকে আটক

করেছে পুলিশ।বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চলমান পরীক্ষা নেওয়ার দাবিতে শাহাবাগে বিক্ষোভ করতে গেলে পুলিশ তাদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিয়ে যায়।

আটক শিক্ষার্থীরা হলেন- তেজগাঁও কলেজের শিক্ষার্থী কাউসার আহমেদ, হাসান আল মাহদী, শাহ দিদার, সিদ্ধেশ্বরী কলেজের শিক্ষার্থী আল আমিন মিনা, সাগর, খিলগাঁও মডেল কলেজের শিক্ষার্থী মোহাম্মদ সজল মিয়া, হাজী সেলিম বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের মিরাজুল ইসলাম। বাকিদের পরিচয় জানা যায়নি।

এছাড়া পরীক্ষার দাবিতে আজিমপুরে কলেজের সামনের সড়ক অবরোধ করেছেন কলেজ অব হোম ইকোনমিক্সের ছাত্রীরা। তাদের অবস্থানের কারণে ওই সড়কে যানচলাচল ব্যাহত হয়।

শিক্ষার্থীদের দাবি, সাত কলেজের পরীক্ষা চললে তাদের দোষ কোথায়। আন্দোলনরত এসব শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে চান।

ডিএমপি রমনা জোনের উপকমিশনার (ডিসি) সাজ্জাদুর রহমান গণমাধ্যমকে বলেন, অনলাইন মেসেজের মাধ্যমে আমরা জেনেছি, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা শাহবাগে অবস্থান নিবে। শাহবাগ চত্বরে অনেক হাসাপাতাল

রয়েছে। জন জীবনের দুর্ভোগ এড়াতে এ রাস্তা যাতে নির্বিঘ্ন থাকে তাই আমরা সবাইকে মেসেজ দিচ্ছি এখানে যেন কেউ জড়ো না হয়। যদি তাদের যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে মেসেজ দেওয়ার মতো কিছু থাকে তারা প্রেস ক্লাবে গিয়ে জড়ো হতে পারে।

আটকের ব্যাপারে তিনি বলেন, তারা কোথায় থেকে এসেছে, কেন এসেছে এগুলো জেনে তাদের যথাসময়ে ছেড়ে দেওয়া হবে।

এ বিষয়ে এক শিক্ষার্থী জানান, আমরা কোনো সরকার পতনের আন্দোলন করছি না, আমরা আমাদের যোক্তিক আন্দোলন করছি। আমাদের চলমান যে পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে সে পরীক্ষা যেন নেওয়া হয়। ৭ কলেজের যদি পরীক্ষা নিতে পারে আমাদের ক্ষেত্রে বৈষম্য কেন।

এর আগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত সাতটি সরকারি কলেজের শিক্ষার্থীরা চলমান পরীক্ষার স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার, হল ও ক্যাম্পাস খুলে দেওয়ার দাবিতে নীলক্ষেত মোড়ে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করা হয়। আন্দোলনের ফলে চলমান ও ঘোষিত পরীক্ষাসমূহ শর্তসাপেক্ষে নেওয়ার কথা জানান শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*